Templates by BIGtheme NET
৮ জুলাই, ২০১৯ ইং, ২৪ আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ৪ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

বাংলাদেশের সাথে নতুন যৌথ প্রকল্পে আগ্রহী বেলারুশ

প্রকাশের সময়: জুলাই ৮, ২০১৯, ৮:৪১ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশের সাথে চলমান সম্পর্ক নিয়ে সন্তষ্টি প্রকাশ করেছেন বেলারুশ প্রজাতন্ত্রের জাতীয় পরিষদের চেয়ারম্যান মিখাইল মায়াননিকভিক। নতুন যৌথ প্রকল্পগুলোর অংশীদার হতে বেলারুশ আগ্রহী বলেও জানান তিনি। বাংলাদেশ কৃষি মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিদলের সাথে এক বৈঠক শেষে তিনি সাংবাদিকদের কাছে এ কথা বলেন। বাংলাদেশ দলের নেতৃত্বে দেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নাসিরুজ্জামান।

এ সময় মিখাইল মায়াননিকভিক বলেন, নতুন প্রকল্প ও ধারণা ভাগাভগির মধ্যে দিয়ে বাংলাদেশ- বেলারুশের মধ্যে সহযোগিতা আরো বাড়বে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি। বৈঠকে বাংলাদেশে বেলারুশের পটাশ স্যারের রফতানি নিয়ে আলোচনা হয়। কৃষি ও অবকাঠামো নির্মাণে বাংলাদেশের প্রশংসা করে তিনি বলেন বাংলাদেশ এ ক্ষেত্রে বেশ সফল।

তিনি আরো বলেন, শুধু বাণিজ্যিক দিকই নয় বাংলাদেশের সাথে নতুন যৌথ উদ্যোগেও বেলারুশ বেশ আগ্রহী। এছাড়াও বেলারুশ শুধুমাত্র বাণিজ্য বিকাশে নয় বরং নতুন যৌথ উদ্যোগে আগ্রহী। বেলারুশ তার প্রযুক্তি এবং উদ্ভাবন ভাগ করতে প্রস্তুত। বেলারুশ কার্পেট শিল্প, বস্ত্র এবং চামড়াজাত পণ্যগুলির জন্য পণ্যসহ বিভিন্ন ধরণের পণ্য বাংলাদেশ থেকে কিনেছে।

মিখাইল তাদের গুণগত মান, জনপ্রিয়তা ও মার্কেটে নিজেদের পণ্য বড় প্রশংসা করে ব্যাপক পরিমাণে সরবরাহের কথা জানান। বেলারুশ সময় বাংলাদেশ সমর্থন করে। বিশেষ করে আন্তর্জাতিক অঙ্গণে। বাংলাদেশে প্রতি এমন বন্ধুত্ব আচরণ করার জন্য বেলারুশের কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ দেন কৃষি সচিব নাসিরুজ্জামান।

বৈঠক চলাকালে বাংলাদেশ-বেলারুশ উন্নয়ন সহযোগিতা নিয়ে বেশি আলোচনা হয়। এর মধ্যে কৃষি খাতও ছিল। বৈঠকে সার ছাড়াও চাষাবাদ ও খামারের যন্ত্রপাতি নিয়েও আলোচনা হয়। বৈঠকের মধ্য দিয়ে দুই দেশের মধ্যে নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে বলেও জানান মিখাইল।

কৃষি সচিব নাসিরুজ্জামান জানান, সভায় অংশগ্রহণকারীরা বীজ চাষ, শিক্ষা, কর্মীদের প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে সহযোগিতার বিষয়ে আলোচনা করেন। ২০১৮ সালে বেলারুশ-বাংলাদেশ দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বেড়েছে ১৮ ভাগ। এর মধ্যে বেলারুশের প্রধান রপ্তানী সরঞ্জাম এবং পটাশ সার সবচেয়ে বেশি রফতানি হয় বাংলাদেশ।

৮ জুলাই বেলারুশিয়ান পটাস কোম্পানি (বিপিসি) এবং বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন (বিএডিসি) আগামী অর্থবছরে বেলারুশিয়ান পটাসিয়াম ক্লোরাইড (৪,৫০,০০০ টন পটাশ সারের) সরবরাহের জন্য একটি স্মারকলিপি ও চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়

যোগাযোগের শর্তাদির উপর জোর দিয়ে উভয়পক্ষ সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দিয়ে আলোচনা করেন। বিপিসি এবং বিএডিসি অংশীদারিত্বের জন্য দৃঢ় ভিত্তি রেখেছে কারণ দুটি সংস্থা রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন এবং তাদের দেশগুলির স্বার্থকে প্রতিনিধিত্ব করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

sixteen − 6 =