Templates by BIGtheme NET
২৯ মার্চ, ২০২০ ইং, ১৫ চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ৪ শাবান, ১৪৪১ হিজরী

দল ঘোষণা ২২ ফেব্রুয়ারি, ফিরছেন সাইফউদ্দিন!

প্রকাশের সময়: ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২০, ৯:২২ অপরাহ্ণ

পূর্ণাঙ্গ এক সিরিজ খেলতেই বাংলাদেশে এসেছে জিম্বাবুয়ে। সফরে একমাত্র টেস্টের পর দুটি টি-টোয়েন্টি এবং তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে তারা। ১ মার্চ থেকে শুরু হতে যাওয়া ওয়ানডে সিরিজের জন্য আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি দল ঘোষণা করবে বিসিবি।

যে দলে দীর্ঘদিন পর ফিরছেন অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন! বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড-বিসিবি সূত্রে এমনটাই জানা গেছে।

এদিকে, আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে প্রথম টেস্টে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে। টেস্টের প্রথম দিনেই ওয়ানডে স্কোয়াড ঘোষণা করবেন নির্বাচকরা। বিসিসি সূত্র থেকে জানা গেছে, একই দিন জানিয়ে দেয়া হবে দুই ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের স্কোয়াডও।

শুরুতে ১৪ সদস্যের ওয়ানডে দল দিলেও সিরিজের প্রথম ম্যাচের দিন অর্থাৎ ১ মার্চ ১৫তম সদস্য হিসেবে টাইগার শিবিরে যোগ দেবেন সৌম্য সরকার। বর্তমানে ব্যক্তিগত কারণে ছুটিতে আছেন তিনি। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু (বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন) করবেন এই ব্যাটিং অলরাউন্ডার।

এছাড়া, গুঞ্জণ চলছে- এই সিরিজ দিয়েই দীর্ঘদিন পর আবারও জাতীয় দলে ফিরছেন সাইফউদ্দিন। গত বিশ্বকাপের আগেই ইঞ্জুরিতে পড়েছিলেন এই বোলিং অলরাউন্ডার। সে সময় প্রিমিয়ার লিগের কয়েকটা ম্যাচ খেলেছিলেন ইনজেকশন নিয়েই। তবে বিশ্বকাপের আগে আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলতে গিয়ে আবারও ব্যথা বাড়ে তার।

সেই ব্যথা সাইফউদ্দিন টেনে নিয়ে গেছেন বিশ্বকাপ পর্যন্ত। যে কারণে খেলতে পারেননি অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচটি। তবে বিশ্বকাপ থেকে ফিরে জিম্বাবুয়ে আর আফগানিস্তানকে নিয়ে ঘরের মাঠে হওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজে মাঠে নেমেছিলেন সাইফউদ্দিন। কাল হয়েছে সেটাই।

পিঠের ইঞ্জুরিতে দীর্ঘদিন ক্রিকেট থেকে দূরে থাকতে হয় ফেনীর এই তারকাকে। যার ফলে খেলতে পারেননি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের সবশেষ আসর।

তবে পূর্ণ চিকিৎসা আর পুনর্বাসন শেষে আবারও মাঠে ফিরেছেন এই অলরাউন্ডার। খেলেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) তৃতীয় রাউন্ড। এবার জাতীয় দলের দরজাও খুঁলে যাচ্ছে সাইফউদ্দিনের সামনে।

এদিকে ইঞ্জুরিতে থাকা পেসার আল-আমিন হোসেনকেও বিবেচনায় রাখছে বোর্ড। চোট কাটিয়ে ফেরা আল-আমিন পুরোদমে বোলিং করতে পারবেন ২১ ফেব্রুয়ারি থেকে। জাতীয় দলের ট্রেনারের কাছ থেকে আসা এমন ছাড়পত্র এসে পৌঁছেছে নির্বাচকদের হাতে।

সুতরাং টেস্ট দল নিয়ে নানা আলোচনা-সমালোচনা হলেও, কেমন হবে টাইগারদের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দল। সেই প্রশ্ন এখন উৎসুক ভক্ত-সমর্থকদের মাঝে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

14 − 12 =