Templates by BIGtheme NET
৩ এপ্রিল, ২০২০ ইং, ২০ চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ৯ শাবান, ১৪৪১ হিজরী

‘ফ্লুসেন্স’
যে যন্ত্রে শনাক্ত হবে করোনাভাইরাস !

প্রকাশের সময়: মার্চ ২২, ২০২০, ৪:১৮ অপরাহ্ণ

ভয়ঙ্কর করোনার তাণ্ডবে গোটা বিশ্ব যখন বেসামাল, তখন এই ভাইরাস শনাক্তে নতুন যন্ত্র আবিষ্কারের ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব ম্যাসাচুসেটস আমহার্স্টের একদল গবেষক। বিজ্ঞানীরা ওই যন্ত্রের নাম দিয়েছেন ‘ফ্লুসেন্স’।

জানা গেছে, সহজে বহনযোগ্য কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাযুক্ত ওই যন্ত্র মানুষের কাশির শব্দ বিশ্লেষণ করে সরাসরি করোনাভাইরাস বা ফ্লুর মতো রোগ পর্যবেক্ষণ করতে সক্ষম।

গবেষকেরা দাবি করেন, আধুনিক প্রযুক্তির কম্পিউটিং প্ল্যাটফর্ম স্বাস্থ্য নজরদারির ক্ষেত্রেও প্রয়োজনীয় টুল হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে ফ্লুসেন্স। এতে মৌসুমি ফ্লু বা অন্যান্য ভাইরাসজনিত শ্বাসযন্ত্রের সমস্যার পূর্বাভাস দিতে পারে। এর মাধ্যমে কোভিড-১৯ মহামারি বা সার্সের মতো ভাইরাস রোগের পূর্বাভাসও দেয়া যায়।

এ ছাড়া ভাইরাসজনিত মহামারীতে জনস্বাস্থ্য পর্যবেক্ষণের সরাসরি তথ্য পাওয়া এসব মডেল জীবন রক্ষাকারী হিসেবে কাজে লাগতে পারে। এই তথ্য উৎসগুলো ফ্লু ভ্যাকসিন প্রচারের সময় নির্ধারণ, সম্ভাব্য ভ্রমণের বিধিনিষেধ, চিকিৎসা সরবরাহের বরাদ্দ নির্ধারণে সহায়তা করতে পারে বলেও মনে করেন তারা।

গবেষকরা বলেন, প্রথমে পরীক্ষাগারে একটি কাশির মডেল তৈরি করেন। এরপর তারা অ্যালগরিদমকে প্রশিক্ষণ দিয়ে মানুষের থার্মাল ছবি তৈরির প্রক্রিয়া শেখান। এরপর তা গোনার জন্য বলেন।

গবেষকেরা তাদের তৈরি ফ্লুসেন্স ডিভাইসটি বইয়ের মতো আয়তাকার বাক্সে রেখে তা চারটি স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রের অপেক্ষাগারে বসান। ২০১৮ সালে ডিসেম্বর থেকে গত বছরের জুলাই মাস পর্যন্ত ফ্লুসেন্স সাড়ে তিন লাখ থার্মাল ইমেজ বিশ্লেষণ করে ও ২ কোটি ১০ লাখ অডিও নমুনা বিশ্লেষণ করে।

গবেষকেরা দেখেন, তাদের তৈরি যন্ত্রটি নিখুঁতভাবে দৈনন্দিন অসুস্থ হওয়ার হার পূর্বাভাস দিতে পারছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

fourteen + 10 =