Templates by BIGtheme NET
২৮ মে, ২০২০ ইং, ১৪ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ৪ শাওয়াল, ১৪৪১ হিজরী

দিনে ১০ হাজার পরীক্ষা
সর্বোচ্চ আক্রান্তের পরেই নিয়ন্ত্রণে আসবে করোনা!

প্রকাশের সময়: মে ২০, ২০২০, ৯:৩৩ অপরাহ্ণ

বুধবার ২০ মে দেশে ১০ হাজার ২০৭ জনের করোনা টেস্ট করানো হয়েছে। এদিনই দেশে সর্বোচ্চ সংখ্যক ১৬৭১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আক্রান্তের সর্বোচ্চ সংখ্যাটি দেখার পরই তা নিয়ন্ত্রণে ব্যবস্থা নেয়া যাবে।

বিশ্বে করোনা সংক্রমণের প্রথমদিকে যেই দেশগুলো আক্রান্ত হয়েছিলো সেসব দেশে এখন সংক্রমনের সংখ্যা কমে এসেছে।

যেসব দেশে দেড়ি করে সংক্রমণ শুরু হয়েছিলো তাদের সংখ্যা এখন বৃদ্ধির দিকে।

আর নেপালসহ বেশ কয়েকটি দেশে সবে মাত্র সংক্রমণ শুরু হয়েছে।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, করোনার সংক্রমণের পরিসংখ্যান ঢেউয়ের মতো যে রেখাচিত্র তৈরি করেছে সেটি প্রায় সব দেশেই এক রকম।

অর্থাৎ সব দেশকেই এই ঢেউ মোকাবেলা করতে হবে কিন্তু তার টাইম ডিউরেশন ক্ষয়ক্ষতি ও মৃত্যুর সংখ্যা নির্ভর করবে দেশটির স্বাস্থ্যসহ সার্বিক ব্যবস্থাপনার ওপর।

বাংলাদেশ প্রথম থেকেই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন অনুযায়ী কাজ করছে। তাদের মতে সংক্রমণের মাত্রা চূড়ায় পৌছানোর পরই তা কমতে শুরু করবে।

কোন দেশ চূড়ায় পৌঁছেছে কিনা সেটি জানতে হলে টেষ্টের সংখ্যা বাড়াতে হবে।

বাংলাদেশের ভাইরোলজি বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আমাদের এখানে এখন করোনা টেস্ট বেড়েছে৷ তাই রোগীও বাড়ছে৷ তবে বাস্তব অবস্থা বুঝতে প্রতিদিন ২০-২৫ হাজার টেস্ট দরকার৷

স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা মনে করেন চূড়ান্ত পর্যায়ে যাওয়ার পরই করোনার প্রকোপ কমতে শুরু করবে৷

এরপর বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন মেনে ধীরে ধীরে লকডউন তুলে নেয়া যেতে পারে৷

তথ্যসুত্র : ডিডাব্লিউ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

18 + 16 =