Templates by BIGtheme NET
১৩ আগস্ট, ২০২০ ইং, ২৯ শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ২২ জিলহজ্জ, ১৪৪১ হিজরী

বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়া সঠিক সিদ্ধান্ত: আশরাফুল

প্রকাশের সময়: জুলাই ২৮, ২০২০, ৮:১০ অপরাহ্ণ

মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে বাংলাদেশ দলের পাকিস্তান, শ্রীলংকা, আয়ারল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড সফর স্থগিত, ঢাকায় আসার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড দলের। টাইগারদের এতগুলো দ্বিপাক্ষিক সিরিজ স্থগিত হওয়ায় শেষ আশা ছিল অন্তত অক্টোবর-নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়ায় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলা হবে। শেষ পর্যন্ত বিশ্বকাপও স্থগিত হয়।

বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়ায় বাংলাদেশ দলের অনেক ক্রিকেটার হতাশা প্রকাশ করেছেন। তবে জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক মোহাম্মদ আশরাফুল হতাশ নন। তিনি বলেছেন, বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়ায় আপাত দৃষ্টিতে ভালোই হয়েছে।

মঙ্গলবার বিকালে একটি জাতীয় সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে একান্ত আলাপে জাতীয় দলের এ তারকা ক্রিকেটার বলেছেন,টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটা এ বছর না হওয়াই ঠিক আছে। কারণ প্রস্তুতি ছাড়া আসলে বিশ্বকাপ খেলতে যাওয়াও ঠিক নয়। তারপর আবার বিশ্বকাপ এবার দেশের বাইরে, অস্ট্রেলিয়ায়। বিশ্বকাপের মতো এত বড় ইভেন্টে খেলতে যাওয়ার আগে লম্বা সময় ধরে ভালো প্রস্তুতি নিতে না পারলে মূল আসরে গিয়ে প্রত্যাশিত পারফরম্যান্স করা আদৌও সম্ভব নয়। সবদিক চিন্তা করলে বিশ্বকাপ এ বছর না হওয়াই সঠিক সিদ্ধান্ত।

চলতি বছরের জুলাই মাসে শ্রীলংকা সফরে গিয়ে তিনটি টেস্ট ম্যাচ খেলার কথা ছিল মুমিনুলদের। কিন্তু করোনায় সেই সফরটি সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পিছিয়ে দেয়ার পরও শেষ পর্যন্ত স্থগিত হয়ে যায়। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়ারপর এ বছরে আর কোনো খেলা না থাকায় স্থগিত হয়ে যাওয়া লংকান সিরিজটি আয়োজনে সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। শ্রীলংকান ক্রিকেট বোর্ড সম্মতি দিলেই সেপ্টেম্বরের শুরুতেই সফরে যাবে টাইগাররা।

করোনায় বাংলাদেশের সম্ভাব্য শ্রীলংকা সিরিজ নিয়ে আশরাফুল বলেন, এই সিরিজটা হলে আমি মনে করি ভালোই হবে। সিরিজের আগে যদি আমাদের জাতীয় লিগটা শুরু করা যায় তাহলে ক্রিকেটাররা প্রস্তুতি সেরে নিতে পারবে। শুনতেছি ঈদের পরই ঘরোয়া লিগটা শুরু হতে পারে।

বিদেশি কোনো দল সফরে আসলে মূল ম্যাচের আগে স্বাগতিক দলের ক্রিকেটারদের সঙ্গে প্রস্তুতিমূলক ম্যাচ খেলার সুযোগ পেয়ে থাকে। যতদূর শোনা যাচ্ছে করোনার কারণে শ্রীলংকান ক্রিকেট বোর্ড বাংলাদেশ দলের সঙ্গে প্রস্তুতিমূলক কোনো ম্যাচ খেলতে আগ্রহী নয়। যে কারণে বিসিবি যাচ্ছে জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের সঙ্গে এইচপি দলের ক্রিকেটারদেরও শ্রীলংকায় নিয়ে যেতে। যাতে করে জাতীয় দল মূল ম্যাচের আগে এইচপি দলের সঙ্গে কয়েকটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে পারে।

এ ব্যাপারে জাতীয় দলের অভিজ্ঞ ক্রিকেটার আশরাফুল বলেছেন, জাতীয় দলের শ্রীলংকা সফরের আগেই যদি ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ শুরু হয় তাহলে তামিম-মুমিনুলরা ঘরোয়া লিগে খেলেই নিজেদের প্রস্তুতি সম্পন্ন করতে পারবে। আর বিসিবি যদি এইচপি দলের ক্রিকেটারদের শ্রীলংকায় নিয়ে যায় তাহলেও খারাপ হবে না।

করোনায় দ্বিপাক্ষিক সিরিজ,এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপ বাতিল হওয়ায় রাজস্ব হারাবে অনেক দেশের ক্রিকেট বোর্ড। ক্রিকেট এবং আর্থিক দিক বিবেচনায় এই বছরটা কতটা ক্ষতিকর। এমন প্রশ্নে জবাবে আশরাফুল বলেন, শুধু ক্রিকেট না, এ ধরনের পরিস্থিতিতে সব ক্ষেত্রেই অনেক ক্ষতি হয়েছে। এর আগে বিশ্বের মানুষ এরকম দুর্ঘটনায় পরেনি, এটা একটা অভিজ্ঞতা বলতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

1 × 5 =