Templates by BIGtheme NET
২০ এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৭ বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ৭ রমজান, ১৪৪২ হিজরি

এক ঘণ্টায় অ্যান্টিবডি পরীক্ষার নতুন পদ্ধতি উদ্ভাবন

প্রকাশের সময়: মার্চ ২৫, ২০২১, ১:২৭ অপরাহ্ণ

করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য কানাডার বিজ্ঞানীরা একটি দ্রুত, নির্ভরযোগ্য ও স্বল্প মূল্যের অ্যান্টিবডি পরীক্ষা পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছেন।

অভিনব পদ্ধতিটির নাম ‘স্যাটিন’ বা ‘সেরোলজিক্যাল অ্যাসে বেসড অন সিপ্লট ট্রাইপার্ট ন্যানোলুসিফারেজ’। যেখানে মাত্র ১ ঘণ্টাতেই এর ফল পাওয়ার দাবি করছেন কানাডার টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা।

আন্তর্জাতিক বিজ্ঞান গবেষণা পত্রিকা নেচার কমিউনিকেশন্স-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, আগে যে এলিজা পদ্ধতিতে কভিডের অ্যান্টিবডি পরীক্ষা বাজারে চালু রয়েছে, তার ফল জানতে অন্তত ছয় থেকে সাত ঘণ্টা অপেক্ষা করতে হতো। খরচও হতো অনেক বেশি। নতুন পদ্ধতি সময় ও খরচ দুই-ই কমাতে পারবে।

নতুন পদ্ধতিতে চিপভিত্তিক পরীক্ষা প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে, যা নিখুঁতভাবে প্লাজমায় উপস্থিত অ্যান্টিবডির ঘনত্ব পরিমাপ করতে সক্ষম হবে।

এ চিপ তৈরি করতে খরচ কম। এ ছাড়া এটি চালাতে কোনো পরীক্ষাগার বা পরিচালন কর্মীর প্রয়োজন পড়ে না। ফলে দেশব্যাপী পরীক্ষার সম্ভাব্যতা বৃদ্ধি করবে।

এখানে ফাইবার অপটিক লাইটের সঙ্গে মাইক্রোফ্লুয়িডিক চিপ ব্যবহার করে অ্যান্টিবডি পরীক্ষার প্ল্যাটফর্মটি তৈরি করা হয়।

একটি সিরিঞ্জ পাম্প ব্যবহার করে নমুনা চিপে টানা হয়। প্লাজমা প্রোটিন চিপে যুক্ত প্রলেপের ন্যানো স্পাইকের পাশ দিয়ে প্রবাহিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে অ্যান্টিবডি স্পাইক প্রোটিনে আটকে থাকে। ফাইবার অপটিক লাইট তা শনাক্ত করে ফেলে।

তবে রক্তে অ্যান্টিবডির সেই ন্যূনতম মাত্রা কতটা, তা এখনো জানা সম্ভব হয়নি। এটি জানতে পারলেই অ্যান্টিবডি পরীক্ষার নতুন পদ্ধতিটি উন্মুক্ত করা হবে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

16 + sixteen =